•  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আবারও বাড়তে চলেছে কথা বলার খরচ। সম্প্রতি ভোডাফোন-আইডিয়া, এয়ারটেল এবং জিও— ভারতের এই তিনটে শীর্ষস্থানীয় টেলিকম সংস্থা বিজ্ঞপ্তি দিয়ে জানিয়ে দিল মাসুল বৃদ্ধির কথা। কিন্তু কতটা মহার্ঘ হবে, সেই সম্পর্কে এখনই পরিষ্কার করে কিছু জানানো হয়নি।

জিও আসার পর নিজেদের মোবাইল রিচার্জ প্ল্যানিং নতুন করে তৈরি করেছিল ভোডাফোন-আইডিয়া এবং এয়ারটেল। ২৮ দিনের ন্যুনতম মাসুল শুরু করেছিল অন্যান্য সংস্থাগুলিও। সস্তায় ব্যাপক পরিষেবা পাওয়ায় তখনও গ্রাহকদের প্রথম পছন্দ ছিল জিও। সম্প্রতি মুকেশ আম্বানির কোম্পানিও তাঁদের মাসুলের পরিবর্তন করেছিল। জিও ছাড়া অন্য নেটওয়ার্কে ফোন করলে টাকা কাটা হবে। এবার নতুনভাবে মাসুল বৃদ্ধির ভাবনায় দেশের তিন শীর্ষ টেলিকম সংস্থাই। আগে ভোডাফোন ঠিক করলেও, পরবর্তীকালে জিও এবং এয়ারটেলও তাতে যোগ দেয়।

তবে কবে থেকে এই মাসুল বৃদ্ধি হবে, কত বাড়বে— সেইসব এখনও কিছুই বলা হয়নি। তবে এইবছরের মধ্যেই সেটা প্রকাশ করার সম্ভাবনা। গ্রাহকদের অবশ্য বক্তব্য, এর বদলে যদি পরিষেবা আরও উন্নত করে, তাহলে সেটাই আখেরে ভাল হবে। নাহলে কেবল ব্যবসায়িক মুনাফারই খেলা চলবে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here