একাধিক বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত ভারতের প্রায় ২৪ লক্ষ শিশু, চাঞ্চল্যকর তথ্য জাতিসংঘের

মে মাসের শেষের দিক থেকেই অসমের বন্যার ভয়াবহতা চোখে পড়ছিল। তারপর দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকেই পাওয়া যাচ্ছিল বন্যার খণ্ডচিত্র। কিন্তু সামগ্রিক ক্ষয়ক্ষতির হিসাব অধরাই ছিল। এবার জাতিসংঘের প্রকাশিত পরিসংখ্যান সেই ছবিই সামনে আনল। জানাল ভয়ঙ্কর বাস্তব পরিস্থিতির কথা। ভারতে বন্যায় সবথেকে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত শিশুরাই।

জাতিসংঘের চিলড্রেন’স ফান্ড অর্থাৎ ইউনিসেফ সম্প্রতি জানাচ্ছে, ভারতে ২৪ লক্ষ শিশু বন্যার কবলে। সব মিলিয়ে বিধ্বস্ত দেশে ৬০ লক্ষ মানুষ। অসম এবং পশ্চিমবঙ্গ ছাড়াও কম-বেশি বন্যার প্রভাব পড়েছে মধ্যপ্রদেশ, মহারাষ্ট্র, বিহার, উড়িষ্যা, কেরল, উত্তরপ্রদেশ, গুজরাট এবং উত্তরাখণ্ডে। জাতিসঙ্ঘের রিপোর্টে উল্লেখ করা হয়, প্রতি বছরেই এই সময়ে বন্যার আশঙ্কা তৈরি হয় ভারতে। কিন্তু এত বেশি অঞ্চল ক্ষতিগ্রস্ত হয় না। এই বছর বন্যার ব্যাপকতা অন্যান্য বছরগুলির থেকে অনেকটাই বেশি।

চলতি বছরে বৃষ্টিপাতের মাত্রা সাধারণের তুলনায় বেশ খানিকটা বেশি থাকায় ভারতের পাশাপাশি ক্ষতিগ্রস্ত দক্ষিণ এশিয়ার দেশগুলি। বিশেষ করে বাংলাদেশ, নেপাল, মায়ানমার এবং চিন। সেইসঙ্গেই গ্লোবাল ওয়ার্মিং এবং পরিবেশ দূষণের জন্য বেড়েছে বরফ গলার হার। দক্ষিণ এশিয়ার এই চারটি দেশে এখনও অবধি বন্যায় মৃত্যুর সংখ্যা ছাড়িয়েছে ৭০০। এছাড়াও নিখোঁজ ৫০-এর বেশি মানুষ। 

বন্যা এবং করোনা ভাইরাসের সংক্রমণে ক্রমশ সঙ্গীন অবস্থা ভারতের। দুইয়ের সাঁড়াশি চাপে বড়োসড়ো ধাক্কা খেয়েছে প্রশাসনও। একদিকে যেমন দৈনিক সংক্রমণের সংখ্যা ৫০ হাজারের কাছাকাছি। তেমনই বন্যায় গৃহহীন হয়ে পড়েছেন লক্ষ লক্ষ মানুষ। যা পরোক্ষভাবে আরও বাড়িয়ে দিচ্ছে সংক্রমণের সম্ভাবনা।

আরও পড়ুন
১৯৮৮ সালের পর, বাংলাদেশে দীর্ঘস্থায়ী হতে চলেছে এ-বছরের বন্যা; সতর্কতা জাতিসংঘের

ইতিমধ্যেই ভারত সরকারের সঙ্গে হাত মিলিয়ে সাহায্যে জন্য নেমেছে ইউনিসেফ। অসমে বন্যা দুর্গত শিশুদের জন্য বিশেষ ফ্লাড-ক্যাম্প তৈরি করা হয়েছে। সেইসঙ্গেই জোর দেওয়া হচ্ছে কোভিড-১৯ ক্যাম্পে। অসমের বেশ কিছু ক্ষতিগ্রস্ত জেলায় আশ্রয়কেন্দ্রগুলিতে করোনা আবহে বিশেষ সতর্কতা অবলম্বনের জন্য তদারকির ব্যবস্থাও করেছে জাতিসংঘের এই প্রতিষ্ঠান। তবে এই বছর বন্যা দীর্ঘস্থায়ী হওয়ায়, ক্ষয়ক্ষতি আরও বৃদ্ধি পাওয়ার সম্ভাবনাও থেকে যাচ্ছে।

আরও পড়ুন
বন্যায় বিপর্যস্ত অসম, কাজিরাঙায় মৃত ৬টি বিরল একশৃঙ্গ গণ্ডার

Powered by Froala Editor

আরও পড়ুন
আসামে বন্যায় আশ্রয়হীন ৩ লক্ষ মানুষ, মৃত এক; ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাসে বাড়ছে দুশ্চিন্তা

More From Author See More

Latest News See More