•  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

শহর কলকাতায় দাঁড়িয়ে বাংলা ভাষা বলতে দ্বিধাগ্রস্ত বোধ করেন এমন মানুষ আমাদের চারপাশে রয়েছেন অনেকেই। দৈনন্দিন জীবন থেকেও এ-ভাষাকে মুছে ফেলেছেন এমন বাঙালির সংখ্যাও কম না। হিন্দি বা ইংরাজি আগ্রাসন নিয়ে সোচ্চার বাঙালির নিভু-নিভু স্বরের পাশে এসে বসল এক নতুন শিরোপা। সাম্প্রতিকতম একটি খবর নিয়ে এখন তোলপাড় বিশ্বদরবার। হ্যাঁ, ঠিকই শুনছেন, লন্ডনে দ্বিতীয় জনপ্রিয় ভাষা হিসাবে মর্যাদা পেল আমাদের বাংলা ভাষা।

সিটি লিট নামক কোম্পানির সাম্প্রতিক সমীক্ষা বলছে, প্রায় ৭১ হাজার ৬০০জন লন্ডননিবাসী কথা বলেন বাংলা ভাষায়। এ এক অকল্পনীয় সত্যি। লন্ডনের মতো শহরে এই মুহূর্তে ইংরাজির পরের স্থানেই বাংলা। এই পরিসংখ্যান অনুযায়ী পোলিশ এবং তুর্কি ভাষাদুটি রয়েছে বাংলার পরে।

বাঙালি ছড়িয়ে রয়েছেন পৃথিবীর প্রতিটি কোণায়, এ খবর নতুন কিছু নয়, তবে জানলে অবাক হবেন যে ব্রিটিশদের মধ্যে এই মুহূর্তে তিন শতাংশ মানুষ বাংলা বলতে এবং লিখতে কম যান না আপনার থেকে। না কোনও সিলেবাস তাঁদের বাধ্য করেনি। নিজেদের খুশিতেই এই ভাষা শিখতে চেয়েছেন তাঁরা।

লন্ডননিবাসী বাঙালিরা নিজেদের কথোপকথনে ধরে রেখেছেন বাংলা ভাষা। এছাড়াও এই সমীক্ষা থেকে জানা যায় ওই শহরের মোট জনসংখ্যার ৩ লক্ষ ১১ হাজার মানুষ ইংরাজি ব্যতীত অন্যান্য বিদেশি ভাষায় কথা বলেন।

আপাতত বাংলা ভাষার মুকুটে নতুন পালক জুড়েছে এই মর্যাদা। এখন দেখার এই সম্মান বাংলার বাঙালিদের গর্বিত করে কিনা!

2 COMMENTS

  1. খুব ভালো খবর। দারুণ খবর! কিন্তু এই খবরে ‘নীভু নীভু’-কে নিভু নিভু আর ‘আপাতত’-কে আপাততঃ ক’রে নিলে আরো খুশি হবো!

  2. এ তো একুশে-ফেব্রুয়ারির বাংলা, উৎস হতে বিচ্ছিন্ন হয়ে এ এক বিকৃত-অপভ্রংশ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here